কালীগঞ্জ বাস টার্মিনালে মাদক ও জঙ্গি বিরোধী বিশাল সমাবেশ অনুষ্ঠিত

মোঃ হাবিব ওসমান, ঝিনাইদহ ব্যুরোঃ
এক সময়কার মাদকের শহর খ্যাত ঝিনাইদহের কালীগঞ্জের নামযষ ছিলো বাংলাদেশের সর্বত্রে। বিশেষ করে কালীগঞ্জের বাসষ্ট্যান্ডের পশ্চিম পাশে সরকারি ব্রিকফিল্ডের জমিতে গড়ে উঠেছিল মাদকপল্লী। সেই মাদক পল্লী উচ্ছেদ করতে সরকার ও প্রশাসনের সময় লেগেছে এক যুগেরও অধিক সময়। এখন আর কালীগঞ্জকে আর মাদকের শহর বলতে পারে না। কেননা এই জনপদে মাদকের গডফাদার এবং চুরোপুটি ব্যবসায়ী ও তাদের অর্থসহ মদতদাতারা প্রশাসনের ধারাবাহিক সাড়াশি অভিযানে মাদকের কারবার নেই বললে চলে। তারপরও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার সাম্প্রতিক নির্দেশে সাড়া দিয়ে প্রশাসনের পাশে দাড়াতে এগিয়ে এসেছে এই জনপদের জনপ্রতিনিধি, সমবায় কর্মি, নারীবাদী সংগঠন, সাংবাদিক, সমাজ সেবক এবং ছাত্র-শিক্ষক জনতা ও মাদক বিরোধী প্রতিবাদি সংস্থা। এ উপলক্ষে গতকাল কালীগঞ্জ বাসষ্ট্যান্ডে অনুষ্ঠিত হলো বিশাল এক মাদক, জঙ্গী ও সন্ত্রাসবাদ বিরোধী সমাবশে।
‘চলো যাই যুদ্ধে, মাদক ও জঙ্গির বিরুদ্ধে’ এই স্লো-গানকে সামনে নিয়ে রবিবার (১০ জানুয়ারী) সকাল সাড়ে ১০ টায় ব্যতিক্রমধর্মী সমাবেশটির আয়োজন করেছিল মোচিক সমবায় সমিতি, কালীগঞ্জ ডায়াবেটিক হাসপাতাল পরিচালনা পরিচালনা পরিষদ ও কালীগঞ্জ পৌর নারী কল্যান সমবায় সমিতির কর্মকর্তা এবং সংগঠনের নেতা-কর্মিরা। কালীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও মাই টিভির সাংবাদিক আনিচুর রহমান (মিঠু মালিথা) ও স্থানীয় একটি কলেজের সহকারী অধ্যাপক সুব্রত নন্দির যৌথ সঞ্চালনায় সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঝিনাইদহ-৪ আসনে দ্বিতীয় বারের মত সংসদ সদস্য ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক তরুন জননেতা আনোয়ারুল আজীম আনার। ঝিনাইদহের সুযোগ্য জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথের সভাপতিত্বে এই সমাবেশে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপ থেকে বক্তব্য রাখেন ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার (পিপিএম সেবা) মোঃ হাসানুজ্জামান, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কনক কান্তি দাস, উপজেলা নির্বাহী অফিসার সুর্বণা রানী সাহা, মোবারকগঞ্জ সুগার মিলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইউসুফ আলী শিকদার, জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মোঃ আজিজুল হক, কালীগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইউনুচ আলী, কালীগঞ্জ পৌরসভার ভারপ্রাপ্ত মেয়র আশরাফুল আলম আশরাফ, জেলা পরিষদের সদস্য জাহাঙ্গীর হোসেন সোহেল, মোদাচ্ছের হোসেন, জেলা পরিষদের সংরক্ষিত মহিলা সদস্য শামীম আরা হ্যাপী, উপজেলা সমাজসেবা অফিসার মোঃ জুলফিকার আলী, উপজেলা সমবায় অফিসার মোঃ আসলাম আলী ভূঁইয়া, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শাহনাজ পারভিন, মোচিক সমবায় সমিতি ও কালীগঞ্জ ডায়াবেটিক হাসপাতালের সাধারন সম্পাদক মোঃ গোলাম রসুল, ৩ নং কোলা ইউপি চেয়ারম্যান আয়ুব হোসেন, পৌর নারী কল্যান সমিতির সভাপতি মিনা রানী ভট্রাচার্য।
সমাবেশে আন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানবৃন্দ, পৌর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফরিদ উদ্দিন আহমেদ, উপজেলা কৃষকলীগের সভাপতি আবুল আবুল কালাম আজাদ, যুবলীগ সভাপতি রেজাউল করিম রেজা, যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি শিবলী নোমানী, উপজেলা বাস্তহারা লীগের রবিউল ইসলাম রবি, মটরশ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি শরিফুল ইসলাম, সাধারন সম্পাদক রজব আলী মন্টু সহ স্থানীয় সকল রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, স্থানীয় সকল সাংবাদিক, স্কুল-কলেজের শিক্ষক প্রতিনিধি, সমাজসেবক, এনজিও প্রতিনিধি, শ্রমিক, ছাত্র, জনতা, ব্যবসায়ী ও সূধীবৃন্দ। সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমপি আনার বলেন, কালীগঞ্জের মাদক পল্লী খ্যাত ব্রিকফিল্ড থেকে মাদক ব্যবসায়ী ও মাদকসেবীদের উচ্ছেদ করে সেখানে শেখ রাসেল মিনি ষ্টেডিয়াম স্থাপন করা হয়েছে। তিনি উপজেলাকে মাদক, জঙ্গী ও সন্ত্রাস মুক্ত করতে সকলকে তার পাশে দাড়ানো এবং পুলিশ প্রশাসনকে সকল প্রকার সহযোগীতার আহবান জানান। তিনি মাদক ব্যবসায়ীদের ধরিয়ে দিতে পারলে ১০ হাজার টাকা পুরুষ্কারের ঘোষনা দেন। এ সময় তিনি গত ৫ বছরে তার সরকারের শাসনামলে এই জনপদের প্রতিনিধি হিসাবে ঝিনাইদহ-৪ এলাকার সর্বত্রে শত শত কোটি টাকার উন্নয়ন কর্মকান্ডের চিত্র তুলে ধরেন।
সমাবেশের সভাপতি জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথ ও বিশেষ অতিথি পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামন তাদের বক্তব্যে বলেন, জঙ্গি, সন্ত্রাস, চোরাচালান ও মাদকদ্রব্যের বেচাকেনা প্রতিরোধে পুলিশের পাশাপাশি এলাকার জনগণকে আন্তরিক হতে হবে। বিশেষ করে অবিভাবকসহ স্কুল, কলেজ ও মাদরাসার ছাত্র-ছাত্রীদের এ সকল অপরাধমূলক কাজ থেকে সম্পূর্ণ বিরত থাকতে হবে। কালীগঞ্জকে অপরাধ, জঙ্গি ও মাদকমুক্ত করতে হলে এলাকায় শিক্ষার হার বাড়াতে অভিভাবকদের আরো আন্তরিক হবার পরামর্শ দেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *