উলিপুরে বাল্য বিবাহ দেয়ার সময় ছেলের বাবা ও ঘটকের কারাদন্ড।

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ

কুড়িগ্রামের উলিপুরে বাল্য বিবাহ দেয়ার সময় ছেলের বাবা ও ঘটকের কারাদন্ড হয়েছে।

জানা যায়, উপজেলার উত্তর দলদলিয়া হোসেনপাড়ার এলাকার আব্দুল কুদ্দুসের মানসিক ভারসাম্যহীন পুত্র সাদেকুল ইসলাম(১৯) এর সাথে গুনাইগাছ ইউনিয়নের কালুডাঙ্গা গ্রামের লালমিয়ার মেয়ে ৬ষ্ঠ শ্রেনীর ছাত্রীর বিবাহ ঠিক করেন ঘটক শহিদুল।ছেলে মানসিক ভারসাম্যহীন এ তথ্যও গোপন রাখেন ওই ঘটক।

বুধবার(২০ মার্চ) সন্ধায় বিয়ের আসরে ছেলের অস্বাভাবিক আচরনে মেয়ের বিয়ে দিতে অপারগতা প্রকাশ করেন লালমিয়া।এতে আব্দুল কুদ্দুস ক্ষীপ্ত হয়ে তার ছেলেকে অপহরন করেছে বলে লালমিয়ার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দেয়।পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে বাল্য বিয়ে ও প্রতারনার বিষয়টি বুঝতে পেরে উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে খবর দেয়।পরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ আব্দুল কাদের ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে ঘটক শহিদুল ইসলামকে ১০দিন ও ছেলের বাবা আব্দুল কুদ্দুসকে ৭দিন বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।

এব্যাপারে বৃহস্পতিবার(২১ মার্চ) উলিপুর থানা অফিসার ইনচার্জ(ওসি) মোঃ মোয়াজ্জেম হোসেন জানান,দন্ডিত দুইজনকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *